৮ বছরে অর্ধলক্ষ অভিবাসনপ্রত্যাশীর মৃত্যু

প্রকাশিত: ২৭-১১-২০২২ ১৪:৩৭

আপডেট: ২৭-১১-২০২২ ১৪:৩৭

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: অবৈধপথে অন্য দেশে পাড়ি জমাতে গিয়ে গত ৮ বছরে বিশ্বজুড়ে প্রাণ হারিয়েছেন ৫০ হাজারেরও বেশি অভিবাসী। আর নিখোঁজ রয়েছেন ৩০ হাজারেরও বেশি। আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থা-আইওএম এর প্রতিবেদনে এসব তথ্য উঠে এসেছে। সংস্থাটি বলছে, অর্থনৈতিক সুযোগের সন্ধান এবং যুদ্ধ ও খাদ্যনিরাপত্তাহীনতাসহ নানা কারণে বিশ্বজুড়ে বাড়ছে অভিবাসন প্রত্যাশীর সংখ্যা।

উন্নত জীবনের আশায় প্রতিবছর সমুদ্র ও স্থলপথেঅবৈধভাবে ইউরোপে পাড়ি জমানোর চেষ্টা করে বহু মানুষ। ঝুঁকিপূর্ণ এই যাত্রায় প্রাণ হারাচ্ছেন অনেকেই। তাদের মধ্যে অর্ধেকেরও বেশি ইউরোপে যাওয়ার পথে বা ইউরোপে অভিবাসনের আগে মারা যান। স¤প্রতি আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থা - আইওএম এর এক প্রতিবেদনে এসব তথ্য উঠে এসেছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ২০১৪ থেকে ২০২২, এই আট বছরে বিশ্বজুড়ে ৫০ হাজারেরও বেশি অভিবাসনপ্রত্যাশীর মৃত্যু হয়েছে। এখনও নিখোঁজ রয়েছেন ৩০ হাজারেরও বেশি অভিবাসী। তাদের মধ্যে ৯ হাজারের বেশি আফ্রিকার, সাড়ে ৬ হাজার এশিয়া এবং আরও ৩ হাজার আমেরিকার বাসিন্দা। 

এরমধ্যে সবচেয়ে বেশি- ২৫ হাজার অভিবাসনপ্রত্যাশীর প্রাণ গেছে ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিয়ে ইউরোপ যাওয়ার পথে। নিখোঁজ হয়েছেন ১৬ হাজার ৩২ জন। এছাড়াও, উত্তরআমেরিকা মহাদেশে মারা গেছে  প্রায় ৭ হাজার অভিবাসনপ্রত্যাশী। যাদের অধিকাংশের মৃত্যু হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রে যাওয়ার পথে। আর এশিয়ার অভিবাসী রুটে আরও ৬ হাজার ২০০ জনের মৃত্যু নথিভুক্ত করেছে আইওএম। যার ১১ শতাংশের বেশি শিশু। 

প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে, অভিবাসনপ্রত্যাশীদের ক্রমবর্ধমান মৃত্যুসত্ত্বেও, সংশ্লিষ্ট দেশগুলোর সরকার ও সংস্থাগুলো এ সংকট মোকাবেলায় একসাথে কাজ করছে না।

 

AAJ/shimul