সলোমন দ্বীপপুঞ্জ নিয়ে বাইডেন-জেসিন্ডার উদ্বেগ

প্রকাশিত: ০১-০৬-২০২২ ১২:১৭

আপডেট: ০১-০৬-২০২২ ১২:১৭

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: সলোমন দ্বীপপুঞ্জের সঙ্গে চীনের নিরাপত্তা চুক্তি নিয়ে উদ্বেগ পুনর্ব্যক্ত করেছে নিউজিল্যান্ড ও যুক্তরাষ্ট্র। গতকাল  মঙ্গলবার (৩১শে মে) হোয়াইট হাউসে এক বৈঠক শেষে নিজেদের উদ্বেগের কথা জানান মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বিডেন এবং নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জেসিন্ডা আরডার্ন।

বৈঠক শেষে হোয়াইট হাউস প্রদত্ত বিবৃতিতে জানা যায়, ‘‘প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলে আমাদের মূল্যবোধ বা নিরাপত্তা স্বার্থ ভাগ করে না এমন একটি রাষ্ট্র দ্বারা ক্রমাগত সামরিক উপস্থিতি প্রতিষ্ঠা এই অঞ্চলের কৌশলগত ভারসাম্যকে মৌলিকভাবে পরিবর্তন করছে। যুক্তরাষ্ট্র এবং নিউজিল্যান্ড উভয়ই এ বিষয়ে উদ্বিগ্ন।’’

গত ২৪ মার্চ চীনের সাথে একটি নিরাপত্তা চুক্তি সাক্ষর করে প্রশান্ত মহাসাগরীয় দ্বীপরাষ্ট্র সলোমন। সামাজিক মাধ্যমে ফাঁস হওয়া একটি গোপন নথিতে দেখা যায় চীনের সাথে একটি পুলিশিং সহযোগিতা চুক্তি স্বাক্ষর করেছে দ্বীপ রাষ্ট্রটি। অনলাইনে ফাঁস হওয়া চুক্তির খসড়া অনুসারে, ‘সামাজিক শৃঙ্খলা বজায় রাখতে’ এবং অন্যান্য বিভিন্ন কারণে সলোমন দ্বীপপুঞ্জে চীনা পুলিশ, সামরিক কর্মী এবং অন্যান্য সশস্ত্র বাহিনী মোতায়েন করতে পারবে বেইজিং।

তবে চুক্তিটি কবে নাগাদ চূড়ান্ত, স্বাক্ষর বা কার্যকর হবে তা পরিষ্কার নয়। চুক্তি সম্পর্কে প্রশ্ন করা হলে চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানায়, ‘‘বেইজিং এবং সলোমন সমতা এবং সহযোগিতার ভিত্তিতে স্বাভাবিক আইন প্রয়োগ ও নিরাপত্তা সহযোগিতায় সম্মত হয়েছে।’’

mina/sharif