বোরো ধান-চাল সংগ্রহে নানা প্রতিকূলতা

প্রকাশিত: ০১-০৬-২০২২ ০৮:২০

আপডেট: ০১-০৬-২০২২ ১৩:০১

রংপুর সংবাদদাতা: রংপুরে চলতি মৌসুমে বোরো ধান ও চাল সংগ্রহ শুরু হলেও কিছু প্রতিকূলতা দেখা দিয়েছে। মিল মালিকরা বলছেন, বৈরী আবহাওয়া ও শ্রমিক সংকটের কারণে ধান কাটা ও মাড়াই এখনো শেষ হয়নি। ফলে চাল উৎপাদনে দেরি হচ্ছে।

কৃষকরা জানালেন, ধান কাটা ও মাড়াইয়ের মৌসুম শেষ না হওয়ায় এখনও ধান সরবরাহ করতে পারছেন না। তবে জেলা খাদ্য কর্মকর্তা বলছেন, আগামী ৩১শে আগষ্ট পর্যন্ত ধান ও চাল সংগ্রহের সময়সীমা থাকায় লক্ষ্যমাত্রা অর্জন সম্ভব হবে। 

রংপুর জেলায় বোরো উৎপাদন ভালো হওয়ায় এ বছর জেলায় ধান ও চাল সংগ্রহের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে সাড়ে ৫১ হাজার মেট্রিকটন। এর মধ্যে ১৭ হাজার ৯শ ৯৯ মেট্রিকটন ধান ও ৩৩ হাজার ৫শ ১৮ মেট্রিকটন চাল সংগ্রহ করা হবে।

এবছর প্রতি কেজি ধান ২৭ টাকা ও প্রতি কেজি চাল ৪০ টাকা কেজি দরে সংগ্রহ করা হচ্ছে। ধানের উৎপাদন ভালো হলেও শ্রমিক সংকটে বিপাকে কৃষকরা। আর শ্রমিক পাওয়া গেলেও তাদের মজুরি দিয়ে গোলায় আনতে যে খরচ হয় তাতে বিক্রি করে লোকসানে পড়ার আশঙ্কায় তারা। 

জেলা খাদ্য কর্মকর্তা মোঃ রিয়াজুর রহমান রাজু জানিয়েছেন চাল সংগ্রহের জন্য ৮ উপজেলায় ৭শ ৪৫ জন মিলারের সাথে চুক্তি হয়েছে। আরও কিছু কাজ শেষে ধান সংগ্রহ শুরু হবে।

জেলায় ধান ও চালের উৎপাদনের চেয়ে সংগ্রহ লক্ষ্যমাত্রা কম হওয়ায় এবং আগামী ৩১শে  আগষ্ট পর্যন্ত সংগ্রহের সময় নির্ধারিত থাকায় সংগ্রহ লক্ষ্যমাত্রা অর্জিত হবে বলে আশাবাদী তিনি।

lamia/sharif