কেন এত বজ্রপাত ?

প্রকাশিত: ১০:০২, ০৮ জুন ২০২১

আপডেট: ১২:৩৯, ০৮ জুন ২০২১

শাহনাজ ইয়াসমিন : দেশে বজ্রপাতে মৃত্যু বাড়ছে। গেল ৪৮ ঘন্টায় সারাদেশে বজ্রপাতে মারা গেছে ৩৩ জন। আর এ বছরের জুন পর্যন্ত সরকারি হিসেবে মারা গেছে ১১০ জন। তবে, বেসরকারি হিসেবে মৃত্যু দ্বিগুণেরও বেশী, ২৩০ জন। গবেষকরা জানালেন, গড়ে প্রতিবছর মৃত্যুর সংখ্যা ২শ’র বেশী। তারা বলছেন, বড় বড় গাছ কমে যাওয়ায় বজ্রপাতে মৃত্যু বেড়েছে। 

তবে, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা সচিব জানিয়েছেন, বজ্রপাত রোধে পূর্বাভাস স্টেশন ও আশ্রয় ছাউনি নির্মাণসহ নতুন প্রকল্প নিয়ে এগুচ্ছে তারা।

ঝড়-বৃষ্টির দুর্ভোগের মাঝে আশঙ্কার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে বজ্রপাতে ক্রমবর্ধমান মৃত্যু। এ বছরের প্রথম ছয় মাসে সরকারি হিসেবে মারা গেছেন ১১০ জন। বেসরকারি হিসাবে ২৩০ জন। গত ১০ বছরে বজ্রপাতে সবচেয়ে বেশি মৃত্যু হয়েছে ২০১৮ সালে, ৩৫৯ জন। গড়ে প্রতিবছর মত্যুর সংখ্যা ২শ'র বেশি। গবেষকরা জানালেন, নাসার তথ্য অনুযায়ী, বজ্রপাতের অন্যতম হটস্পট বাংলাদেশ। বড় বড় গাছ কেটে ফেলায় বজ্রপাতে মৃত্যুর সংখ্যা উদ্বেগজনক হারে বাড়ছে বলে মনে করেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিশেষজ্ঞ নাঈম ওয়ারা।

বজ্রপাতে মৃতদের বেশিরভাগই কৃষক, যারা মারা গেছেন খোলা মাঠে, ফসলি জমিতে। এর সমাধানে জমির আইলে ৩৫ লাখ তালগাছ রোপণের প্রক্রিয়া শুরু করেছে সরকার। সারাদেশে ৩'শর বেশি পূর্বাভাস স্টেশন নির্মাণ করার কথা ভাবছে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয়। দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের সচিব মোহাম্মদ মোহসীন জানালেন, আশ্রয়কেন্দ্র নির্মাণ ও এরেস্টার নামে এক ধরণের মেশিন বসানো হবে, যার মাধ্যমে বজ্রপাতের আগাম বার্তা পাওয়া যাবে।

প্রকল্প পাশ হলে বজ্রপাত প্রবণ এলাকাগুলোতে আগে তা বাস্তবায়ন করা হবে। তার আগ পর্যন্ত মৃত্যু কমাতে সচেতনতার ওপর জোর দিচ্ছে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয়।
 

SB/KHR

এই বিভাগের আরো খবর

ট্যানারির বর্জ্যে এবার বিষাক্ত হচ্ছে ধলেশ্বরী

ইউসুফ রানা: বুড়িগঙ্গা দূষিত করে এবার...

বিস্তারিত
চন্দ্রগ্রহণ, সূর্যগ্রহণ ও সুপার মুন

অনলাইন ডেস্ক: ইংরেজি এক্লিপস্...

বিস্তারিত
ব্ল্যাক ফাঙ্গাস নিয়ে আতংকের কিছু নেই

নিজস্ব প্রতিবেদক : করোনা ভাইরাসের...

বিস্তারিত
ঘুরে দাঁড়াচ্ছে দেশের রপ্তানি বাণিজ্য

ইউসুফ রানা: করোনার ধকল কাটিয়ে ঘুরে...

বিস্তারিত
জাতীয় চিড়িয়াখানায় এসেছে ৪২ অতিথি

ফাহিম মোনায়েম: জাতীয় চিড়িয়াখানা...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *