‘ব্রিটিশ পার্লামেন্টে বাংলাদেশের গণহত্যা নিয়ে আলোচনা’

প্রকাশিত: ০২:১৯, ১৪ মে ২০২১

আপডেট: ০৩:০৮, ১৪ মে ২০২১

কাজী বাপ্পা: জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকীর বছর ছিল ২০২০। তাঁর শততম জন্মবার্ষিকীর দিন, ১৭ই মার্চ থেকে শুরু হয়েছে মুজিববর্ষ উদযাপন, যা চলছে এই স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীর বছরও। স্বাধীন বাংলাদেশ ও বঙ্গবন্ধু একাত্মা। তিনিই একাত্তরের ২৬শে মার্চ স্বাধীনতা ঘোষণা করেন। তাঁর ডাকেই মানুষ স্বাধীনতার জন্য সশস্ত্র যুদ্ধে ঝাপিয়ে পড়েছিল। শেখ মুজিবুর রহমানের বিরল ঐতিহাসিক নেতৃত্বের সেই উত্তাল আন্দোলন ও সশস্ত্র মুক্তিযুদ্ধের দিনগুলো নিয়ে মুজিববর্ষ ও স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীর বছরজুড়ে বৈশাখী সংবাদের বিশেষ ধারাবাহিক আয়োজন- যাঁর ডাকে বাংলাদেশ। আজ ৪’শ ১৪ তম প্রতিবেদন। 

একাত্তরে মুক্তিযুদ্ধের শুরু থেকেই বাংলাদেশে দখলদার পাকিস্তানী সেনাবাহিনীর বাঙ্গালি নিধনযজ্ঞের বিরুদ্ধে বলিষ্ঠ ভূমিকা রাখে সেসময়ের বৃটিশ সরকার এবং পত্রিকাগুলো। তখন প্রায় প্রতিদিনই বাংলাদেশ প্রসঙ্গে আলোচনা হতো বৃটিশ পার্লামেন্টে। সেসব আলোচনা লন্ডনের সব সংবাদপত্র গুরুতেÍ সথে প্রকাশ করতো। ১৯৭১ সালের ১৪ই মে, ব্রিটিশ হাউজ অব কমন্সে বাংলাদেশে তখন ঘটমান গণহত্যা নিয়ে আলোচনা হয়।

বৃটিশ পার্লামেন্টের সদস্য ডগলাস ম্যান বলেন, “পাকিস্তানী সেনাবাহিনীই প্রথম বাঙ্গালীদের হত্যা করতে শুরু করে। আক্রমণ প্রতিরোধ করার জন্য আজ বাংলাদেশের প্রবাসী সরকার ঘোরতর যুদ্ধে লিপ্ত। আন্তর্জাতিক ক্ষেত্রে ব্রিটেনের যে প্রতিপত্তি আছে তাই দিয়ে চাপ সৃষ্টি করা উচিত। তাড়াতাড়ি যুদ্ধ শেষ হলে স্বাধীন পূর্ববঙ্গ একটি দায়িত্বশীল সরকার গঠন করে শৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনতে পারবে এবং সেখানে গণতান্ত্রিক ধারা রক্ষিত হবে।” (সূত্রঃ মুক্তিযুদ্ধের দলিলপত্র, খন্ড-১)

আলোচনায় বৈদেশিক উন্নয়ন মন্ত্রী রিচার্ড উড বলেন, “পূর্ব পাকিস্তানে রক্তপাত বন্ধ এবং শান্তি স্থাপন সকলের কাম্য হলেও অর্থনৈতিক সাহায্যকে চাপের ব্যাপারে ব্যবহার করা অনুচিত।” (সূত্রঃ প্রবাসে মুক্তিযুদ্ধের দিনগুলি, আবু সাঈদ চৌধুরী)

একাত্তরের এদিন জাতির উদ্দেশ্যে ভাষণ দেন বাংলাদেশ সরকারের প্রধানমন্ত্রী তাজউদ্দিন আহমদ। স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্র ভাষণ প্রচার করে। তাজউদ্দিন আহমেদ বলেন, “ভুলে যান আজ আপনার ধর্ম, পেশা কি? আমরা সবাই বাঙ্গালী। দুুনিয়ার কোন শক্তিই আমাদেরকে পরাধীনতার শৃঙ্খলে আবদ্ধ রাখতে পারবে না।” (সূত্রঃ স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্র)

HIB/MSI

এই বিভাগের আরো খবর

‘ব্যক্তি জীবনে ভিন্ন মেজাজের ছিলেন বঙ্গবন্ধু’

গোলাম মোর্শেদ: সব ভেদাভেদ ভুলে দেশের...

বিস্তারিত
‘ভারতের বন্ধুত্ব চিরদিন মনে রাখবে বাঙ্গালী’

কাজী বাপ্পা: জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ...

বিস্তারিত
'আমরা লড়াই করেছি স্বাধীনতার জন্য'

কাজী বাপ্পা: জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ...

বিস্তারিত
‘৭ই মার্চের ভাষণের প্রভাব ছিলো জীবনে’

গোলাম মোর্শেদ: সব ভেদাভেদ ভুলে দেশের...

বিস্তারিত
‘বিশ্বনেতাদের মাঝেও উজ্জ্বল ছিলেন বঙ্গবন্ধু’

বিউটি সমাদ্দার: সব ভেদাভেদ ভুলে দেশের...

বিস্তারিত
কিংকর্তব্যবিমূঢ় হয়ে পড়ে পাকিস্তানি সেনারা

কাজী বাপ্পা: জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *