করোনায় মৃত্যু: বেশিরভাগ চিকিৎসক পরিবার পায়নি ক্ষতিপূরণ

প্রকাশিত: ০২:০৮, ২৫ অক্টোবর ২০২১

আপডেট: ০৩:০৬, ২৫ অক্টোবর ২০২১

শেখ হারুন: করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা যাওয়া সরকারি চিকিৎসক, নার্স ও স্বাস্থ্যকর্মীদের মধ্যে মাত্র ১৩ জনের পরিবার পেয়েছে সরকার ঘোষিত ক্ষতিপূরণ। বাকিরা আবেদনের পরও ক্ষতিপূরণের টাকা পাননি। এজন্য আমলাতান্ত্রিক জটিলতাকেই দায়ী করছেন সংশ্লিষ্টরা। তবে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর বলছে, সঠিক প্রক্রিয়া অনুসরণ করতে যেয়ে ক্ষতিপূরণের অর্থ দিতে বিলম্ব হচ্ছে। 

বাংলাদেশ মেডিকেল এসোসিয়েশনের তথ্য মতে গত বছরের ১৫ই এপ্রিল থেকে চলতি বছরের আগস্ট মাস পর্যন্ত করোনায় মারা গেছেন সরকারি-বেসরকারি ১৮৭ জন চিকিৎসক ও ৩৭জন নার্স। আর স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হিসাবে সরকারি হাসপাতালের ডাক্তার, নার্স ও স্বাস্থ্যকর্মী মারা গেছেন ৭৫ জন। 

করোনা আক্রান্তদের চিকিৎসায় নিয়োজিত সরকারি হাসপাতালের চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মী করোনায় মারা গেলে সরকার তাদের পরিবারকে ৫ থেকে ৫০ লাখ টাকা পর্যন্ত ক্ষতিপূরণ দেয়ার ঘোষণা দেয়। তবে, এক বছর পার হলেও ক্ষতিপূরণের টাকা পাননি অনেক পরিবার। 

সরকারি হাসপাতালের মারা যাওয়া ৭৫ জন ডাক্তার, নার্স ও স্বাস্থ্যকর্মীর মধ্যে ক্ষতিপূরণ পেয়েছেন মাত্র ১৩ জনের পরিবার। বাকিরা আবেদনের পরও ক্ষতিপূরণের টাকা পাননি।

চিকিৎসক সংগঠনের নেতারা বলছেন, সংশ্লিষ্টদের গাফিলতি এবং আমলাতান্ত্রিক জটিলতার করণে চিকিৎসকদের পরিবার এখনো ক্ষতিপূরণ পায়নি। 

তবে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর জানিয়েছে, অনেকের কাগজে সঠিক তথ্য না থাকায় জটিলতার সৃষ্টি হচ্ছে। 
যারা ঝুকি নিয়ে চিকিৎসা দিতে গিয়ে মৃত্যুবরণ করছেন তাদের পরিবারের সদস্যদের দ্রুত ক্ষতিপূরণ পরিশোধ করার তাগিদ চিকিৎসক নেতাদের।

HAR/MSI

এই বিভাগের আরো খবর

স্বাভাবিক জীবনে যেমন আছেন জলদস্যুরা

আশিক মাহমুদ: সুন্দবনের যেসব দস্যু তিন...

বিস্তারিত
স্থবিরতা কাটিয়ে প্রাণ ফিরেছে সুন্দরবনে

আশিক মাহমুদ: করোনায় দীর্ঘ স্থবিরতার...

বিস্তারিত
ক্যাবল টিভি নেটওয়ার্ক ডিজিটালে ধীরগতি

কাজী ফরিদ: চলতি মাসের মধ্যে ঢাকা ও...

বিস্তারিত
মোটা চাল মেশিনে কেটে হচ্ছে চিকন !

মেহের মণি: দেশে ১শ ৬ জাতের ধান চাষ হলেও...

বিস্তারিত
বিমানে পাইলট সংকট, ফ্লাইট সূচীতে বিপর্যয়

রীতা নাহার: পাইলট সংখ্যা কম থাকায়...

বিস্তারিত
বিদ্যুৎ খাতের মহাপরিকল্পনায় আসছে পরিবর্তন

ফাহিম মোনায়েম: পরিবর্তন আসতে যাচ্ছে...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *