পাকিস্তানের কাছে হারায় ভারতীয় সমর্থকদের টিভি ভাংচুর আপডেট: ১০:৫১, ১৯ জুন ২০১৭

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতে চির প্রতিদ্বন্দ্বী পাকিস্তানের কাছে বড় ব্যবধানে হারের কারণে ক্ষোভ জানয়েছে ভারতের ক্রিকেক প্রেমিরা। যে পাকিস্তানকে ১২৪ রানে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি শুরু করেছিল ভারত, সেই পাকিস্তানের কাছেই ফাইনালে ১৮০ রানে হেরে লজ্জাজনকভাবে হারতে হয় কোহলিদের।

চিরশত্রু পাকিস্তানের কাছে তাদের এই ‘লজ্জাজনক’ হারে ভারতীয় ক্রিকেট ভক্তরা ক্ষোভ জানিয়ে টেলিভিশন সেট ভাঙচুর করে। ভারতের উত্তর প্রদেশের কানপুর আর উত্তরাখণ্ডের হরিদ্বার অঞ্চলে টিভি ভাঙচুর করে প্রতিবাদ জানানোর খবর পাওয়া গেছে। চ্যাম্পিয়নস ট্রফির ফাইনালে পাকিস্তানের দুর্দান্ত বোলিং আর ব্যাটিংয়ের কাছে ভারতের হারকে অসহায় আত্মসমর্পণ হিসেবেই দেখছে সমর্থকেরা। টেলিভিশন ভাঙচুর করে সেই ক্ষোভেরই বহিঃপ্রকাশ ঘটিয়েছে তারা।

এদিকে, অবাঞ্ছিত পরিস্থিতি এড়াতে আগে থেকেই দেরাদুনের বিখ্যাত ক্লক টাওয়ারের আশপাশে ১৪৪ ধারা জারি করে উত্তরাখণ্ড সরকার। ম্যাচের পর রাঁচিতে মহেন্দ্র সিং ধোনির বাড়ির সামনে মোতায়েন করা হয় পুলিশ।

সমর্থকেরা কোহলির পোস্টারে আগুন ধরিয়ে দেয়। কোহলি নিজেও অধিনায়ক হিসেবে ও ব্যাটসম্যান হিসেবেএদিন ব্যর্থ হয়েছে। কোহলির মাত্রাতিরিক্ত আগ্রাসী মনোভাবের তীব্র সমালোচনাও  করেছেন অনেকে। তাই ভারতীয় অধিনায়ককে নিয়ে তীব্র সমালোচনার করছেন সমর্থকেরা।

এমনকি এই সমালোচনার মুখে ভারতের সাবেক ক্রিকেটাররা চুপ রয়েছেন। তবে পাশে এসে দাঁড়িয়েছেন অন্য দেশের ক্রিকেটাররা। অ্যাডাম গিলক্রিস্ট, মাইস হাসিরা বলেছেন, এক ম্যাচ দিয়ে কোহলিকে বিবেচনা করা ঠিক হবে না।

 

Publisher : .