গণহত্যার বিচারে আশার আলো দেখছেন রোহিঙ্গারা

প্রকাশিত: ০৬:২৮, ১২ ডিসেম্বর ২০১৯

আপডেট: ০৭:২৮, ১২ ডিসেম্বর ২০১৯

কক্সবাজার সংবাদদাতা: রাখাইনে রোহিঙ্গা গণহত্যার অভিযোগে মিয়ানমারের বিরুদ্ধে জাতিসংঘের আন্তর্জাতিক আদালতে বিচারকাজ শুরু হওয়ায় আশার আলো দেখছেন বাংলাদেশে আশ্রিত রোহিঙ্গারা।

মিয়ানমারের রাখাইনে জাতিগত নিপীড়নের শিকার হয়ে পালিয়ে আসা ১১ লাখেরও বেশি রোহিঙ্গা এখন কক্সবাজারের আশ্রয় শিবিরে রয়েছেন। এ ঘটনার জন্য মিয়ানমারকে এতদিন বিচারের কাঠগড়ায় দাঁড় করানো সম্ভব হয়নি। তবে আন্তর্জাতিক মহলের তৎপরতায় মিয়ানমার এখন বিচারের মুখোমুখি। নেদারল্যান্ডসের হেগে অবস্থিত আন্তর্জাতিক বিচারিক আদালতে মঙ্গলবার শুরু হয়েছে মিয়ানমারের বিরুদ্ধে গাম্বিয়ার দায়ের করার মামলার শুনানি।

এ বিচারকাজ শুরু হওয়ায় আশার আলো দেখছেন কক্সবাজারের উখিয়া ও টেকনাফের আশ্রয় শিবিরে থাকা মিয়ানমারের রোহিঙ্গারা। এর ফলে ন্যায়বিচার নিশ্চিত হওয়ার পাশাপাশি নাগরিকত্ব নিয়ে নিজ দেশে ফিরে যেতে পারবেন বলে ধারণা করছেন তারা।

এদিকে, উখিয়া উপজেলা চেয়ারম্যান মনে করেন, বিচারকাজ শুরু হওয়ার ব্যাপারটি রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের বিষয়ে বাংলাদেশ কূটনৈতিক সফলতার প্রথম ধাপ। এরই ধারাবাহিকতায় আন্তর্জাতিক চাপের মুখে সব মৌলিক অধিকার নিশ্চিত করে রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে বাধ্য হবে মিয়ানমার।

দেরিতে হলেও মিয়ানমারকে বিচারের আওতায় আনতে পারায় বিষয়টি প্রত্যাবাসন নিশ্চিত হওয়ার ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি বলেই মনে করেন স্থানীয় জনপ্রতিনিধি ও আশ্রিত রোহিঙ্গারা।

এই বিভাগের আরো খবর

ভূমিকম্পে কেঁপে উঠলো সিলেট

সিলেট সংবাদদাতা: সিলেটে মৃদু...

বিস্তারিত
হাসপাতালে আইসোলেশন ইউনিট খোলার নির্দেশ

অনলাইন ডেস্ক: সম্প্রতি চীনে দেখা...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *