প্রবল শক্তি নিয়ে সাগরদ্বীপে আঘাত হেনেছে ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’

প্রকাশিত: ০২:০৩, ০৯ নভেম্বর ২০১৯

আপডেট: ০৯:১১, ০৯ নভেম্বর ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক: প্রবল শক্তি নিয়ে সাগরদ্বীপে আঘাত হেনেছে ঘূর্ণিঝড় বুলবুল। শুরু হয়ে গেছে এর তাণ্ডবলীলা। ঝড়ের গতিবেগ ঘন্টায় ১০০ থেকে ১২০ কিলোমিটার। প্রবল ঝড়ে ইতিমধ্যে সেখানে বেশ কয়েকটি বাড়ি-দোকান ভেঙে পড়েছে বলে জানা গেছে। বেশ কয়েকটি সেখানে গাছও ভেঙে পড়েছে। 

তবে এর অগ্রভাগ বাংলাদের উপকূলে পৌঁছেছে। এটি সুন্দরবনের নিকট দিয়ে অতিক্রম করবে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অফিস। ঘূর্ণিঝড় কেন্দ্রের ৭৪ কিলোমিটারের মধ্যে বাতাসের গতিবেগ ঘন্টায় ১১০ থেকে ১৩০ কিলোমিটার।

এর প্রভাবে উপকূলে প্রচন্ড ঝড় বইছে। তবে মাঝরাতের মধ্যে পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশ উপকূলে আঘাত হানতে পারে অতি প্রবল ঘুর্ণিঝড়টি।

ঘন্টায় ১২০ কিলোমিটার থেকে ১৪০ কিলোমিটার বেগে উপকূলের দিকে এগিয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’। মোংলা সমুদ্রবন্দরের ২৪০ কিলোমিটার এবং পায়রা সমুদ্রবন্দরের ২৭৫ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে অবস্থান করছে ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’। শনিবার (৯ নভেম্বর) ঘূর্ণিঝড়ের কারণে দেওয়া আবহাওয়া অধিদপ্তরের ২৪ নম্বর বিশেষ বুলেটিনে এমন তথ্যই জানানো হয়েছে।

বিশেষ বুলেটিনে মোংলা ও পায়রা বন্দর এবং উপকূলীয় জেলা ভোলা, বরগুনা, পটুয়াখালী, বরিশাল, পিরোজপুর, ঝালকাঠি, বাগেরহাট, খুলনা ও সাতক্ষীরাসহ এর আশপাশের দ্বীপ এবং চরাঞ্চলগুলোতে ১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেত বহাল রাখতে বলা হয়েছে।

অন্যদিকে চট্টগ্রাম বন্দরে এবং উপকূলীয় জেলা চট্টগ্রাম, নোয়াখালী, লক্ষ্মীপুর, ফেনী ও চাঁদপুরসহ এর আশপাশের দ্বীপ এবং চরাঞ্চলগুলোতে ৯ নম্বর মহাবিপদ সংকেত বহাল রাখতে বলা হয়েছে।

এর প্রভাবে স্বাভাবিকের চেয়ে ৫ থেকে ৭ ফুট উঁচু জলোচ্ছ্বাস হতে পারে। উপক‚লীয় এলাকার মানুষকে নিরাপদ আশ্রয়ে সরিয়ে নেয়া হচ্ছে। চট্টগ্রাম কক্সবাজার যশোর ও বরিশাল বিমান বন্দর বন্ধ করে দেয়া হয়েছে।

উত্তর-পশ্চিম বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড় বুলবুল আরো শক্তিশালী হয়ে বাংলাদেশ উপকূলের দিকে এগিয়ে আসছে। এর কেন্দ্রে বাতাসে একটানা সর্বোচ্চ গতিবেগ ঘন্টায় ১৩০ কিলোমিটার যা দমকা অথবা ঝড়োহাওয়া আকারে ১৫০ কিলোমিটার পর্যন্ত বাড়ছে। ঘুর্ণিঝড়টি সামনে এগুচ্ছে ১৫ থেকে ২০ কিলোমিটার গতিতে।

আবহাওয়া অধিদপ্তর বলছে, ঘুর্ণিঝড়টি বর্তমানে মংলা থেকে ২৪০ কিলোমিটার, পায়রা থেকে ২৫৫ এবং চট্টগ্রাম থেকে ৪২০ কিলোমিটার দূরে অবস্থান করছে। তবে, বাংলাদেশ অতিক্রম করার সময় জোয়ার থাকার কারণে স্বাভাবিকের চেয়ে ৫ থেকে ৭ ফুট উচ্চতার জলোচ্ছ্বাসের আশংকা করছেন আবহাওয়াবিদেরা।

ঘুর্ণিঝড়ের প্রভাবে উপকূলের আটটি জেলা সাতক্ষীরা, খুলনা, বাগেরহাট, বরগুনা, পিরোজপুর, পটুয়াখালী, ভোলা ও চাঁদপুর ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় রয়েছে। খুলনা, সাতক্ষীরা, বাগেরহাট, বরগুনা, পিরোজপুর, পটুয়াখালী ও ভোলা জেলা সমূহকে ১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেত এবং চাঁদপুর ও নোয়াখালীকে ৯ নম্বর বিপদ সংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে।

তারা বলছেন, ঘূণিঝড় বুলবুল সুন্দরবন উপকূলের ওপর দিয়ে অতিক্রম করতে পারে। এজন্য এ অঞ্চলে ক্ষয়ক্ষতির ঝুঁকি বেশি। তবে উপকূলীয় অন্যান্য জেলা এবং চট্টগ্রামেও এর প্রভাব ব্যাপক হতে পারে। বন্দরের জাহাজগুলোকে নিরাপদে রাখা হয়েছে।

ঘূণিঝড়েরর পূর্ব এবং পরবর্তী পরিস্থিতি মোকাবেলায় প্রশাসনের পক্ষ থেকে বিভিন্ন ধরনের পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে। নিয়ন্ত্রণ কক্ষ খূলে সার্বক্ষণিক নজর রাখা হচ্ছে বুলবুলে গতিপথের ওপর। সচিবালয়ে বিভিন্ন মন্ত্রণালয়, অধিদপ্তরের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের নিয়ে আন্ত:মন্ত্রনালয় বৈঠক করে করনীয় ঠিক করেছে সরকার।

আবহাওয়া অধিদপ্তর বলছে, ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে উপকূলীয় এলাকায় দমকা হাওয়ার সাথে বৃষ্টি শুরু হয়েছে। এছাড়াও সাগর উত্তাল রয়েছে।

এই বিভাগের আরো খবর

রিফাত হত্যায় ১৪ আসামির অভিযোগ গঠন আজ

অনলাইন ডেস্ক: রগুনায় রিফাত শরীফ...

বিস্তারিত
পাথরঘাটায় বিস্ফোরণের তদন্ত শুরু

চট্টগ্রাম সংবাদদাতা: চট্টগ্রামের...

বিস্তারিত
নওগাঁয় ট্রাকচাপায় মা ও মেয়ের মৃত্যু

নিজস্ব প্রতিবেদক: নওগাঁ সদর উপজেলার...

বিস্তারিত
দেশের বিভিন্ন জেলায় চলছে আয়কর মেলা

ডেস্ক প্রতিবেদন: নানা অয়োজনের মধ্য...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *