নয়াপল্টনে খোকার জানাজায় মানুষের ঢল, জুরাইনে সমাহিত

প্রকাশিত: ০২:৩৪, ০৭ নভেম্বর ২০১৯

আপডেট: ০৮:২৬, ০৭ নভেম্বর ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক: রাজধানীর জুরাইনে মায়ের কবরের পাশে সমাহিত হলেন  বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান ও অবিভক্ত ঢাকা সিটি কর্পোরেশনের মেয়র সাদেক হোসেন খোকা। এর আগে নয়াপল্টনে দলের কার্যালয়ের সামনে তার তৃতীয় জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। আজ (বৃহস্পতিবার) বাদ জোহর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে জানাজায় ঢল নামে নেতা-কর্মীসহ সর্বস্তরের মানুষের।

দুপুর ২টায় নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে তার জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। নয়াপল্টনে জানাজা পড়ান জাতীয়তাবাদী ওলামা দলের মাওলানা নেসারুল হক। 

জানাজার আগে খোকার মরদেহবাহী অ্যাম্বুলেন্স পৌঁছলে তাকে দলের নেতাকর্মীরা ফুলেল শ্রদ্ধা জানান। এ সময় বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন, মির্জা আব্বাস, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, ভাইস চেয়ারম্যান শাহ মোয়াজ্জেম হোসেন, আবদুল্লাহ আল নোমান, চৌধুরী কামাল ইবনে ইউসুফ, আলতাফ হোসেন চৌধুরী, জয়নাল আবদীন, শামসুজ্জামান দুদুসহ অনেকে উপস্থিত ছিলেন।

জানাজার আগে বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতারা সেখানে সাদেক হোসেন খোকার বর্নাঢ্য রাজনৈতিক জীবন নিয়ে কথা বলেন।

এর আগে বৃহস্পতিবার দুপুর ১২টায় তার মরদেহ আনা হয় কেন্দীয় শহীদ মিনারে। সেখানে দলের কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দসহ বিভিন্ন অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা পুষ্প অর্পণের মাধ্যমে তার মরদেহের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।

এর আগে বেলা ১১টার দিকে জাতীয় সংসদ ভবনের দক্ষিণ প্লাজায় খোকার মরদেহবাহী গাড়িটি পৌঁছায়। পরে দক্ষিণ প্লাজায় অস্থায়ীভাবে স্থাপিত মঞ্চে মরদেহের কফিনটি রাখা হয়। সেখানে তার দেশে প্রথম ও তার দ্বিতীয় নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হয়।

তার আগে সকাল ৮টা ২৮ মিনিটের দিকে খোকার মরদেহ বহনকারী ফ্লাইটটি ঢাকায় হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছায়।

নিউ ইয়র্কের ম্যানহাটনের বিশেষায়িত হাসপাতাল মেমোরিয়াল স্লোয়ান ক্যাটারিং ক্যান্সার সেন্টারে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রোববার রাতে মারা যান বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান খোকা। তার বয়স হয়েছিল ৬৭ বছর। সোমবার নিউ ইয়র্কে কুইন্সের জ্যামাইকা মুসলিম সেন্টারে খোকার জানাজা হয়। যুক্তরাষ্ট্র বিএনপির নেতা-কর্মীরা ছাড়াও প্রবাসীদের অনেকেই সেখানে জানাজায় অংশ নেন।

২০০২ সালের ২৫ এপ্রিল অবিভক্ত ঢাকা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে মেয়র নির্বাচিত হন সাদেক হোসেন খোকা। ২৯ নভেম্বর ২০১১ সাল পর্যন্ত টানা ১০ বছর বিএনপি ও আওয়ামী লীগের শাসনামলে তিনি ঢাকা মহানগরের মেয়র ছিলেন।

চিকিৎসার জন্য ২০১৪ সালের ১৪ মে দেশ ছাড়েন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান সাদেক হোসেন খোকা। বিদেশে থাকা অবস্থায় দুটি মামলায় তার সাজা হয়। গত ১৮ অক্টোবর নিউইয়র্কের ম্যানহাটনের মেমোরিয়াল স্লোয়ান ক্যাটারিং ক্যান্সার সেন্টারে ভর্তি হন তিনি। সোমবার দুপুর ১টা ৫০ মিনিটে তার মৃত্যু হয় খোকার।

এই বিভাগের আরো খবর

সংসদে দাঁড়িয়ে ক্ষমা চাইলেন রাঙ্গা

অনলাইন ডেস্ক: জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ...

বিস্তারিত
বিএনপিকে নিয়ে আ. লীগ মিথ্যাচার করছে: ফখরুল

নিজস্ব প্রতিবেদক: আওয়ামী লীগ নিজেরা...

বিস্তারিত
বিএনপির অনেক নেতাই দল ছেড়ে যেতে চায়: তথ্যমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক: বিএনপির অনেক নেতাই...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *