ঢাকা, বুধবার, ১৭ জানুয়ারী ২০১৮, ৪ মাঘ ১৪২৪, ২৯ রবিউস সানি ১৪৩৯
শিরোনামঃ
বরেণ্য সংগীতশিল্পী শাম্মী আক্তার আর  নেই রাজধানীর বাসাবাড়িতে তীব্র গ্যাস সংকট গণতান্ত্রিক অগ্রযাত্রায় বাংলাদেশ : প্রণব আট ব্যাংকের নিয়োগ পরীক্ষা বাতিল রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন সমাপ্ত হবে দুই বছরের মধ্যে মেয়র পদে তাবিথই ২০ দলীয় জোটের প্রার্থীঃ রিজভী খালেদা আগামী প্রধানমন্ত্রীঃ মওদুদ অনুপ্রবেশ নিয়ে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ভারতের কড়া হুঁশিয়ারি এতিমখানা দুর্নীতি মামলায় খালেদা জিয়ার পক্ষে যুক্তিতর্ক উপস্থাপন শেষ কলম্বিয়ায় সেতু ধসে নিহত ৯ ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনায় আইনি বাধা নেই বাল্যবিয়ে আজও দেশের বড় সামাজিক সমস্যা নিরোধ আইন করেও বন্ধ হয়নি বাল্যবিয়ের চর্চা ২০৩০ সালের মধ্যে বাল্যবিয়ে অর্ধেকে নামানোর ঘোষণা সরকারের শিক্ষা ও স্বাস্থ্যের জন্য বাল্যবিয়ে ঝুঁকিপূর্ণ চাঁদপুরে পিকআপ-অটোরিকশার সংঘর্ষে নিহত ৩ বিয়ের গসিপে বিরক্ত সোনাম কাপুর

আরো অনেক বছর বাঁচতে চান অসুস্থ কণ্ঠশিল্পী আবদুল জব্বার

প্রকাশিত: ০৫:১০ , ০২ জুন ২০১৭ আপডেট: ০৫:১০ , ০২ জুন ২০১৭

বিশেষ প্রতিবেদন: গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েছেন স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের কন্ঠযোদ্ধা আব্দুল জব্বার। তাঁর দুটি কিডনিই নষ্ট হয়ে গেছে এবং নানা শারিরীক জটিলতায় ভূগছেন তিনি। সরকারি-বেসরকারি সহযোগিতায় চলছে তাঁর চিকিৎসা। তবে, তা পর্যাপ্ত নয় বলে জানান শিল্পী ও তাঁর স্বজনরা। আরো কিছু সৃষ্টিশীল গান এবং মৌলিক গান ভক্তদের উপহার দিতে চান তিনি। আকুতি জানালেন আরো অনেক বছর বেঁচে থাকার। জীবন সায়াহ্নে এসে জানালেন নানা ক্ষেভের কথাও। 

যাঁদের গানে একাত্তরের রণাঙ্গণের জীবন্ত চিত্র উঠে এসেছিলো, মুক্তিযোদ্ধারা পেয়েছিলেন শত্রুর বিরুদ্ধে যুদ্ধজয়ের শক্তি, তাদেরই একজন নন্দিত কণ্ঠশিল্পী আব্দুল জব্বার। বর্তমানে গুরুতর অসুস্থ স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের এই শিল্পী। নানা শারীরিক জটিলতায় ভুগছেন তিনি। তবুও তাঁর কথায় ফুটে ওঠে গান আর সাধারণ মানুষের প্রতি ভালোবাসা। 

১৯৩৮ সালে কুষ্টিয়ায় জন্ম গ্রহণ করেন শিল্পী আব্দুল জব্বার। ষাটের দশক থেকে আশির দশকের জনপ্রিয় কণ্ঠশিল্পীদের মধ্যে তিনি অন্যতম। মুক্তিযুদ্ধে গলায় হারমনিয়ান ঝুলিয়ে ঘুরে ঘুরে গান করেছেন ক্যাম্প থেকে ক্যাম্পে। কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ পেয়েছেন একুশে পদক, স্বাধীনতা পদকসহ দেশ-বিদেশের নানা সম্মাননা।

আরো সৃষ্টিশীল গান গাওয়ার জন্য, গানে নতুন প্রজন্মকে তৈরি করার জন্য আরো কিছুদিন বেঁচে থাকার আকুতি জানান তিনি। 

সরকারি-বেসরকারি পর্যায়ে পাওয়া সহযোগিতা তাঁর চিকিৎসার জন্য পর্যাপ্ত নয় বলে জানালেন তাঁর স্বজনরা। 

চিকিৎসার জন্য বঙ্গবন্ধু শেখ মজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে ভর্তি থাকলেও, ছুটির দিনে বাসাতেই বিশ্রাম নেন তিনি। তাঁর ভাবনা জুড়ে রয়েছে জাতির জনকের স্নেহ এবং দেশের মানুষের ভালোবাসার অসংখ্য স্মৃতি। 
 

এই বিভাগের আরো খবর

শিক্ষামন্ত্রীর আশ্বাস

আমরণ অনশন কর্মসূচি প্রত্যাহার স্বতন্ত্র ইবতেদায়ী মাদ্রাসা শিক্ষকদের

নিজস্ব প্রতিবেদক : শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে জাতীয়করণের দাবি মেনে নেয়ার আশ্বাসে আমরণ অনশন কর্মসূচি প্রত্যাহার করেছে বাংলাদেশ...

ডিএনসিসির উপনির্বাচনের তফসিল স্থগিত চেয়ে রিটের আদেশ কাল

নিজস্ব প্রতিবেদক: ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন-ডিএনসিসির উপনির্বাচনের তফসিল স্থগিত চেয়ে হাইকোর্টে পৃথক রিট হয়েছে। আদালত আগামীকাল বুধবার...

আট ব্যাংকের নিয়োগ পরীক্ষা বাতিল

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ রাষ্ট্রীয় আট ব্যাংকের জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা পদে নিয়োগ পরীক্ষা বাতিলের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। আজ মঙ্গলবার বেলা ১১টার দিকে...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is