হুমায়ূন আহমেদের সপ্তম মৃত্যুবার্ষিকী আজ 

প্রকাশিত: ১০:০৬, ১৯ জুলাই ২০১৯

আপডেট: ০৪:৫৩, ১৯ জুলাই ২০১৯

নিজস্ব প্রতিবেদক: নন্দিত কথাসাহিত্যিক হুমায়ূন আহমেদের সপ্তম মৃত্যুবার্ষিকী আজ। ২০১২ সালের এই দিনে চিরবিদায় নেন বাংলা সাহিত্যের এই উজ্জ্বল নক্ষত্র। যাঁর সৃষ্টিকর্ম তৈরি করেছিলো অসংখ্য নতুন পাঠক। স্বজন ও বন্ধুরা বললেন, ঘরে-বাইরে একজন অন্যরকম মানুষ ছিলেন হুমায়ূন আহমেদ। সাধারণের মনস্তত্ব বুঝবার দারুণ ক্ষমতা ছিলো এই লেখকের। তাঁর মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষ্যে গাজীপুরের নূহাশ পল্লীতে রয়েছে নানা আয়োজন। 

হুমায়ূন আহমেদ, বাংলা সাহিত্যের জননন্দিত লেখক। শুধু এই পরিচয়ে অসম্পূর্ণ রয়ে যান তিনি। ছিলেন একাধারে নাট্যকার, গীতিকার ও চলচ্চিত্রকারও। স্বাধীনতা পরবর্তী সময়ে ‘নন্দিত নরকে’ উপন্যাস প্রকাশের পরপরই আলোচিত হয়ে উঠেন তিনি। এরপর শুধুই সামনে এগিয়ে চলা। হয়ে উঠেন বাংলা কথাসাহিত্যের অপ্রতিদ্বন্দ্বী লেখক। আমৃত্যু সিক্ত হয়েছেন পাঠকের ভালোবাসায়। 

সংলাপ প্রধান শৈলীর জনক হুমায়ূন আহমেদ চিরবিদায় নেন ২০১২ সালের ১৯ জুলাই। রেখে যান তাঁর সৃষ্ট হিমু, মিসির আলি ও শুভ্রর মতো চরিত্রগুলো। যা দেশের তরুণদের উৎসাহিত করে বই পড়তে। বিজ্ঞান কল্পকাহিনী রচনাতেও পেয়েছেন জনপ্রিয়তা। তাঁর নির্মিত চলচ্চিত্র ও নাটক এখনো গেঁথে আছে দর্শক হৃদয়ে।

তাঁর সৃষ্টিকর্ম পাঠকের হৃদয়ে বেঁচে থাকুক, এমনই আকাঙ্খা ছিলো হুমায়ূন আহমেদের, জানালেন তাঁর অনেক গ্রন্থের প্রকাশক মাজহারুল ইসলাম। 

স্মৃতিচারণ করতে গিয়ে হুমায়ূন আহমেদের ছোটভাই লেখক ও কার্টুনিস্ট আহসান হাবীব বললেন, লেখার মধ্যে দিয়ে হুমায়ূনকে নতুন করে আবিস্কার করছেন পরিবারের সদস্যরা।

নন্দিত এই লেখকের মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষ্যে গাজীপুরের নূহাশ পল্লীতে রয়েছে নানা আনুষ্ঠানিকতা।

বাঙ্গালি মধ্যবিত্তের মনস্তত্ত্বকে গভীরভাবে পর্যবেক্ষণ করা গুনী এই সাহিত্যিক তাঁর কর্মের মধ্যে বেঁেচ আছেন কোটি হৃদয়ে। 

এই বিভাগের আরো খবর

বৈশাখী টেলিভিশনের অনুষ্ঠানসূচী, ৩১ অক্টোবর

আজ বৃহস্পতিবার, ৩১ অক্টোবর ২০১৯, ১৬...

বিস্তারিত
বৈশাখী টেলিভিশনের অনুষ্ঠানসূচী, ৩০ অক্টোবর

আজ বুধবার, ৩০ অক্টোবর ২০১৯, ১৫ কার্তিক...

বিস্তারিত
নড়াইলে পান চাষে লাভবান কৃষকরা

নড়াইল প্রতিনিধি: অনুকূল আবহাওয়ায়...

বিস্তারিত
টাঙ্গুয়ার হাওরের জীববৈচিত্র্য হুমকির মুখে

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি: দূষণের কারণে...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *