চাঁদপুরে সরকারের দেয়া বসতঘরে ২০৮ পরিবারের বাস

প্রকাশিত: ১০:০৩, ০৮ জুলাই ২০১৯

আপডেট: ১০:০৩, ০৮ জুলাই ২০১৯

চাঁদপুর প্রতিনিধি : চাঁদপুরের কচুয়ায় গৃহহীন ২শ’ ৮টি পরিবার এখন বসবাস করছে সরকারের তৈরী করে দেওয়া বসত ঘরে। এ মানুষগুলোর জমি থাকলেও কারও ছিলনা ঘর, আবার কেউবা  বসবাস করতেন ছন আর ঝুপড়ি ঘরে। ঝড় বৃষ্টি এলেই ভূগতেন আতঙ্কে। স্থায়ী ঘর পেয়ে ভীষণ খুশি মানুষেরা ধন্যবাদ জানালেন প্রধানমন্ত্রীকে।

চাঁদপুরের কচুয়া উপজেলার আশ্রাফপুর গ্রামের মোহাম্মদ সিরাজ মিয়া। ষাটোধর্ এ মানুষটির ঘর ছিলো না। বৃদ্ধ বয়সে স্ত্রী সাজেদা বেগমকে নিয়ে নিদারুণ কষ্টে কাটছিলো তার দিন। সরকারি ঘর পেয়ে এখন নিশ্চিন্তে ঘুমাতে পারছেন এ বয়োবৃদ্ধ দম্পতি। তাই কৃতজ্ঞতা স্বরূপ সরকারকে ধন্যবাদ জানালেন তারা।

শুধু সিরাজ মিয়া নয়, আলী আজগর, মিনহাজসহ অন্য সুবিধাভোগীরাও বললেন,  ‘যার জমি আছে, ঘর নেই’ এই প্রকল্পের আওতায় ঘর পেয়ে খুশি তারা। এখন আর ঝড় বৃষ্টিতে তাদের ভয় হয় না।

এমন উদ্যোগ অব্যাহত থাকলে দেশে একজন মানুষও গৃহহীন থাকবে না, বললেন স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা। ২০১৮-২০১৯ অর্থ বছরে কচুয়ায় গৃহহীনদের জন্য ২০৮টি ঘর নির্মাণে একলাখ টাকা করে বরাদ্দ দেয় সরকার। যা প্রকৃত গৃহহীনদের মাঝে বিতরণ করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নীলিমা আফরোজ।

২০১৮-১৯ অর্থবছরে চাঁদপুরের ৮৭ ইউনিয়নে ১৫শ’ ৬৬টি ঘর বরাদ্দ দিয়েছে সরকার। যা  এখন গৃহহীনদের কাঙ্খিত ঠিকানা।
 

এই বিভাগের আরো খবর

আজও কয়েকটি জেলায় অঘোষিত পরিবহন ধর্মঘট

অনলাইন ডেস্ক: নতুন সড়ক পরিবহন আইন...

বিস্তারিত
সিলেট হঠাৎ লবণ উধাও, গুজব নিয়ন্ত্রণে প্রশাসন

নিজস্ব প্রতিবেদক: সিলেটে ‘লবণের দাম...

বিস্তারিত
পাসপোর্ট ‘ভেরিফিকেশনের’ তথ্য এসএমএসে

নিজস্ব প্রতিবেদক: পাসপোর্টের পুলিশ...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *