৮ বছরেও জাতীয় উদ্যান হয়নি নবাবগঞ্জের শালবন

প্রকাশিত: ১১:২৫, ২০ জুন ২০১৯

আপডেট: ১১:২৫, ২০ জুন ২০১৯

হিলি প্রতিনিধি: উত্তরবঙ্গের সবচেয়ে বড় প্রাকৃতিক বন নবাবগঞ্জের শালবন। ২০১০ সালে জাতীয় উদ্যান হিসেবে ঘোষণার আট বছর পার হলেও প্রয়োজনীয় অবকাঠামোর অভাবে বনটি আজও জাতীয় উদ্যানের রূপ পায়নি। স্থানীয়রা বলছেন, যথাযথ উদ্যোগ নিলে এই শালবনটি হয়ে উঠতে পারে দেশের অন্যতম পর্যটন স্পট। যার মধ্য দিয়ে রাজস্ব আয় বৃদ্ধির পাশাপাশি সৃষ্টি হবে কর্মসংস্থান।

দিনাজপুরের নবাবগঞ্জ উপজেলা সদর থেকে এক কিলোমিটার উত্তরে অবস্থান নববাগঞ্জ শালবনের। ঐতিহাসিক আশুরার বিল ও সীতার কোট বৌদ্ধ বিহার নিয়ে প্রায় দেড় হাজার একর আয়তনের এই বনটিকে ২০১০ সালের ২৩ অক্টোবর জাতীয় উদ্যান হিসেবে ঘোষণা করে সরকার। তবে সৌন্দর্য্য বর্ধন কিংবা পর্যটকদের জন্য প্রয়োজনীয় অবকাঠামো না থাকায় এখনো জাতীয় উদ্যান হিসেবে পূর্ণাঙ্গতা পায়নি বনটি।

স্থানীয়রা বলছেন, শালবনের প্রাকৃতিক সৌন্দর্য্যকে কাজে লাগানো গেলে এটি পর্যটকদের কাছে আকর্ষণীয় স্থানে পরিণত হবে।

বন বিভাগ বলছে, বনটিকে জাতীয় উদ্যানে পরিণত করতে হলে, জীবজন্তুর জন্য আবাসস্থল গড়ে তুলতে হবে। চারদিকে সীমানা দেয়াল, নির্মাণের পাশাপাশি কটেজ, পর্যবেক্ষণ টাওয়ার, বিদ্যুৎ সরবরাহ ব্যবস্থা, শৌচাগারসহ বিভিন্ন অবকাঠামো নির্মাণ করতে হবে।

নবাবগঞ্জ শালবন প্রাকৃতিকভাবেই সৌন্দর্য্যে ভপরপুর। সুষ্ঠু পরিকল্পনার মাধ্যমে এই সৌন্দর্য্যকে কাজে লাগানো গেলে শালবনটি দেশের অন্যতম পর্যটন স্পট হয়ে উঠতে পারে বলে মনে করছেন স্থানীয়রা।

এই বিভাগের আরো খবর

শব্দ দূষণে অতিষ্ঠ গোপালগঞ্জবাসী

গোপালগঞ্জ প্রতিনিধি: শব্দ দূষণে...

বিস্তারিত
বিশ্ব নদী দিবস আজ

অনলাইন ডেস্ক: বিশ্ব নদী দিবস আজ। নদী...

বিস্তারিত
গাছ লাগিয়ে দৃষ্টান্ত গড়লেন পাবনার এক যুবক

পাবনা প্রতিনিধি: পাবনায় নিজ খরচে গাছ...

বিস্তারিত
দেশের সব নদী দখলমুক্ত করা হবে: নৌ সচিব

নিজস্ব প্রতিবেদক: সারাদেশের নদীগুলো...

বিস্তারিত

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

মন্তব্য প্রকাশ করুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত করা আছে *