ঢাকা, সোমবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৮, ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৫

2018-11-19

, ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৪০

টেকনাফে আনসার ক্যাম্পে লুট হওয়া আরো ৬টি অস্ত্র উদ্ধার

প্রকাশিত: ১১:০০ , ০১ মার্চ ২০১৭ আপডেট: ১১:০০ , ০১ মার্চ ২০১৭

টেকনাফের আনসার ক্যাম্প থেকে লুট হওয়া ৬টি অস্ত্র বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ির পাহাড়ি এলাকা থেকে উদ্ধার করেছে র‌্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব) সদস্যরা।

আজ বুধবার ভোররাতে নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার তমব্র“ পশ্চিমকুল এলাকায় অভিযান চালিয়ে এসব অস্ত্র উদ্ধার করা হয়।

এর আগে গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে উখিয়ার কুতুপালং এলাকা থেকে আনসার ক্যাম্পে সশস্ত্র হামলার অন্যতম হোতা রোহিঙ্গা নাগরিক নুরুল আলমকে গ্রেপ্তার করে র‌্যাব। পরে তাকে নিয়েই র‌্যাব সদস্যরা অস্ত্র উদ্ধারে অভিযানে নামেন।

কক্সবাজারে র‌্যাব-৭-এর কোম্পানি কমান্ডার আশেকুর রহমান জানান, গত বছরের মার্চে টেকনাফে আনসার ক্যাম্পের লুট হওয়া ১১টি অস্ত্রের মধ্যে ৬টি অস্ত্র উদ্ধার করা হয়। মঙ্গলবার র‌্যাবের হাতে গ্রেপ্তার হওয়া রোহিঙ্গা ডাকাত নুর আলমের স্বীকারোক্তি অনুযায়ী নাইক্ষ্যংছড়ির পাহাড়ি এলাকা থেকে এসব অস্ত্র উদ্ধার করা হয়।

গত বছর ১৩ মে ভোররাতে টেকনাফের নয়াপাড়ার মুচনি এলাকার নিবন্ধিত রোহিঙ্গা শরণার্থী ক্যাম্পের নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা আনসার ক্যাম্পে সশস্ত্র হামলা চালায় একদল দুর্বৃত্ত। এতে নিহত হন আনসার ক্যাম্পের কমান্ডার মো. আলী হোসেন এবং লুট করা হয় ১১টি বিভিন্ন ধরনের আগ্নেয়াস্ত্র ও ৬৭০টি গুলি।

এ ঘটনায় জড়িত থাকার ব্যাপারে প্রথম থেকেই রোহিঙ্গাদেরকে দায়ী করে আসছিল আইন-শৃংখলা রক্ষাকারী বাহিনী। ঘটনার পরদিন অজ্ঞাতপরিচয় ৩০-৩৫ জনের বিরুদ্ধে আনসার ক্যাম্পের ভারপ্রাপ্ত কমান্ডার মো. আলমগীর হোসেন বাদী হয়ে টেকনাফ থানায় মামলা দায়ের করেন।

এ ঘটনায় অভিযুক্ত বেশ কয়েকজন রোহিঙ্গা সন্ত্রাসীকে গ্রেপ্তার করে আইন-শৃংখলা রক্ষাকারী বাহিনী। র‌্যাবের সর্বশেষ অভিযানে গত ৯ জানুয়ারি ঘটনার অন্যতম মূল হোতা মাস্টার আবুল কালাম-সহ ৩ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়। এসময় উদ্ধার করা হয় লুট হওয়া ৫টি অস্ত্র ও ১১৫ রাউন্ড গুলি।

ঘটনায় জড়িত নুর আলমসহ ১২ জনকে এ পর্যন্ত গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

 

এই বিভাগের আরো খবর

এবার উড়ন্ত বাইকে অপরাধী ধরবে পুলিশ

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ডেস্ক: অপরাধীদের ধরতে তাদের গাড়িতে পেছনে পেছনে সমান তালে পাল্লা দিতে হবে না আর পুলিশ অফিসারের। বাইক এবার গাড়ির ওপর দিয়ে...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is