ঢাকা, রবিবার, ১৯ মে ২০১৯, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬

2019-05-18

, ১৩ রমজান ১৪৪০

দুর্নীতি মামলায় খোকাসহ ৪ জনের ১০ বছর করে কারাদণ্ড

প্রকাশিত: ১২:৩৭ , ২৮ নভেম্বর ২০১৮ আপডেট: ০৫:৩৩ , ২৮ নভেম্বর ২০১৮

নিজস্ব প্রতিবেদক: বিএনপি নেতা ও ঢাকা সিটি করপোরেশনের সাবেক মেয়র সাদেক হোসেন খোকাসহ চার জনকে দুর্নীতির মামলায় ১০ বছর করে কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।

বুধবার সকালে ঢাকার বিভাগীয় স্পেশাল জজ মিজানুর রহমান খান এ রায় ঘোষণা করেন।
মামলার অপর তিন আসামি হলেন- ঢাকা সিটি করপোরেশনের ইউনিক কমপ্লেক্স দোকান মালিক সমিতির সভাপতি আবদুল বাতেন নকী, সাধারণ সম্পাদক মাহমুদ হাসান আজাদ ও গুডলার্ক কার পার্কিংয়ের ব্যবস্থাপক এইচ এম তারেক আতিক।

রায়ে বলা হয়েছে, পলাতক সাদেক হোসেন খোকাকে ৪০৯ এবং ১৯৪৭ এর ৫(২) ধারা অনুযায়ী দোষী সাব্যস্ত করে ১০ বছরের বিনাশ্রম কারাদণ্ড এবং ২০ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। এছাড়া মামলার অপর তিন আসামিকে বিনাশ্রম কারাদণ্ডের পাশাপাশি ১০ লাখ টাকা করে জরিমানা করা হয়েছে।
এর আগে ১৯ নভেম্বর এ মামলার রায় ঘোষণা করার দিন ধার্য থাকলেও রায় প্রস্তুত না হওয়ায় ২৮ নভেম্বর রায় ঘোষণার জন্য দিন ধার্য করেন আদালত।
মামলার অভিযোগে বলা হয়, আসামিরা পরস্পর যোগসাজশে ক্ষমতার অপব্যবহার করে ডিসিসির বনানী সুপার মার্কেট কাম হাউজিং কমপ্লেক্সের বেজমেন্টের কার পার্কিং ইজারার জন্য ২০০৩ সালের দরপত্র আহ্বান করেন। অংশগ্রহণ করা ৪টি দরপত্রের মধ্যে মিজানুর রহমান নামে এক ব্যক্তি বার্ষিক এক লাখ ১০ হাজার টাকায় সর্বোচ্চ দরদাতা নির্বাচিত হন। কিন্তু পরবর্তীতে সাদেক হোসেন খোকা অপরাপর আসামিদের সঙ্গে পরস্পর যোগসাজশে ইজারার কার্যক্রম স্থগিত করেন। এর মাধ্যমে ফেব্র“য়ারি ২০০৩ সাল হতে ফেব্র“য়ারি ২০১১ সাল পর্যন্ত ৩০ লাখ ৮২ হাজার ৩৯৯ টাকা ঢাকা সিটি করপোরেশনের ক্ষতি করেছেন।

এ ঘটনায় ২০১২ সালের ১৫ ফেব্র“য়ারি রাজধানীর শাহবাগ থানায় দুদকের সহকারী পরিচালক মাহবুবুল আলম বাদী হয়ে এ মামলা করেন। মামলাটিতে ২০১২ সালের ৮ নভেম্বর বাংলাদেশ দণ্ডবিধির ৪০৯/১০৯ ধারা এবং ১৯৪৭ সালের দুর্নীতি প্রতিরোধ আইনের ৫ (২) ধারায় চার্জশিট দাখিল হয়।

২০১৫ সালের ২০ অক্টোবর জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জন ও তথ্য গোপনের মামলায় সাদেক হোসেন খোকাকে পৃথক ধারায় ১৩ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন ঢাকার তিন নম্বর বিশেষ জজ আদালত। একই সঙ্গে ১১ লাখ টাকা অর্থদণ্ড অনাদায়ে আরও সাত মাস কারাদণ্ডের আদেশ দেন। রায়ে সাদেক হোসেনের ১০ কোটি ৫ লাখ ২১ হাজার ৮৩২ টাকার স্থাবর ও অস্থাবর সম্পদ বাজেয়াপ্ত করে তা রাষ্ট্রের অনুকূলে জমা করার নির্দেশ দেন আদালত।
বিভিন্ন রোগের উন্নত চিকিৎসার জন্য ২০১৪ সালে সাদেক হোসেন খোকা যুক্তরাষ্ট্রে যান। এখনও তিনি যুক্তরাষ্ট্রেই অবস্থান করছেন বলে জানা গেছে।

এই বিভাগের আরো খবর

খালেদা জিয়াকে জামিন না দেয়া সংবিধান পরিপন্থী: বিএনপি 

নিজস্ব প্রতিবেদক: মামলাগুলোর চূড়ান্ত নিষ্পত্তি না হওয়ার পরও বেগম খালেদা জিয়াকে জামিন না দেয়া সংবিধান পরিপন্থী। বলেছেন, বিএনপির নেতারা।...

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ঐতিহাসিক স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস আজ 

নিজস্ব প্রতিবেদক: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ঐতিহাসিক স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস আজ। ১৯৭৫ সালের ১৫ই আগস্ট জাতির জনককে সপিরবারে হত্যার পর...

খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য ঐক্যবদ্ধ হয়ে রাজপথে নামুন : নজরুল

নিজস্ব প্রতিবেদন : খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য সকলকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে রাজপথে নামার আহবান জানিয়েছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান।...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is