ঢাকা, শুক্রবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৬ আশ্বিন ১৪২৫

2018-09-21

, ১০ মহাররম ১৪৪০

বছর না পেরোতেই মৈত্রী এক্সপ্রেসে যাত্রী সংকট

প্রকাশিত: ০৬:২৩ , ১১ সেপ্টেম্বর ২০১৮ আপডেট: ০৬:২৩ , ১১ সেপ্টেম্বর ২০১৮

বেনাপোল প্রতিনিধি : উদ্বোধনের এক বছর না পেরোতেই চার ভাগের এক ভাগে নেমে এসেছে খুলনা-কোলকাতা রুটের মৈত্রী ট্রেন বন্ধন এক্সপ্রেসের যাত্রী। টিকিট বিক্রিতে জটিলতার কারণে এই অবস্থা সৃষ্টি হয়েছে বলে জানালেন যাত্রীরা। তবে, এ বিষয়ে কথা বলতে রাজি হয়নি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ। এছাড়াও ভারতীয় কাস্টমসের বিরুদ্ধে হয়রানির অভিযোগও করেছেন কেউ কেউ।

গত বছরের ১৬ নভেম্বর খুলনা-কলকাতা রুটে পরীক্ষামূলকভাবে যাত্রা শুরু করে ‘বন্ধন এক্সপ্রেস’। ফলে ৫২ বছর পর খুলনার সাথে কোলকাতার রেল যোগাযোগ শুরু হয়।

প্রতি বৃহস্পতিবার সকাল ৭ টা ১০ মিনিটে কলকাতা থেকে ছেড়ে দুপুরে খুলনা স্টেশনে পৌঁছায়। আর দুপুর একটা ৪৫ মিনিটে খুলনা থেকে কোলকাতার উদ্দেশে ছেড়ে যায় ‘বন্ধন এক্সপ্রেস’। তবে এরই মধ্যে কমছে ট্রেনটির যাত্রী সংখ্যা। ৪৫৬টি আসনের বিপরীতে গড়ে যাত্রী হয় ৯০ থেকে ১২০ জন।

যাত্রীরা বলছেন, দুই দেশে মাত্র দু’টি স্টেশনে টিকিট বিক্রি করাই এর কারণ। এদিকে, ভারতে কাস্টমসে হয়রানি অভিযোগও করলেন কেউ কেউ।

যাত্রী সংকটের কথা স্বীকার করে সংশ্লিষ্ট কর্র্তৃপক্ষ বলছে, সপ্তাহে ২ দিন ট্রেনটি চলাচল করলে বাড়বে যাত্রী সংখ্যা।

অনলাইনে টিকিট বিক্রি ও স্টপিজ বাড়ালে এই রুটে যাত্রী আরো বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা।

 

এই বিভাগের আরো খবর

গণপরিবহনে শৃঙ্খলা আনতে কমিটি গঠন

নিজস্ব প্রতিবেদক: রাজধানীর গণপরিবহনে শৃঙ্খলা আনা, যানজট নিরসনে বাস রুট নির্ধারণ করা ও কোম্পানির মাধ্যমে বাস পরিচালনা পদ্ধতি প্রবর্তন...

নারী হয়রানি বন্ধে বাসে ক্লোজসার্কিট ক্যামেরা বসানোর পরিকল্পনা

নিজস্ব প্রতিবেদক: রাজধানীর গণপরিবহনে নারী যাত্রীদের হয়রানি বন্ধে বাসে ক্লোজ সার্কিট ক্যামেরা বসানোর পরিকল্পনা নিয়েছে সরকার। শিগগিরই এ...

কাঁঠালবাড়ী-শিমুলিয়া রুটে লঞ্চ-স্পিডবোট চলাচল শুরু

বৈশাখী ডেস্ক: বৈরি আবহাওয়ার কারণে বৃহস্পতিবার- ৬ সেপ্টেম্বর সারাদিন বন্ধ থাকার পর আজ শুক্রবার- ৭ সেপ্টেম্বর কাল থেকে লঞ্চ-স্পিডবোট চলাচল...

ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে গজারিয়ায় চার কিলোমিটার জুড়ে যানজট

মুন্সিগঞ্জ প্রতিনিধি: ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের মুন্সিগঞ্জের গজারিয়া অংশে চার কিলোমিটার জুড়ে যানজট দেখা দিয়েছে। বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is