ঢাকা, মঙ্গলবার, ২০ নভেম্বর ২০১৮, ৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৫

2018-11-20

, ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪০

বাগেরহাটে বেড়িবাঁধ ভেঙে পানিবন্দী ৬ গ্রামের মানুষ

প্রকাশিত: ১১:২৯ , ০৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮ আপডেট: ১১:৩৯ , ০৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮

বাগেরহাট প্রতিনিধি : বাগেরহাটে ভৈরব নদীর বেড়িবাঁধ ভেঙে জোয়ারের পানি ঢুকে পানিবন্দী হয়ে পড়েছে ৬ গ্রামের সহস্রাধিক পরিবার। ভেসে গেছে দুইশ’রও বেশি মাছের  ঘের। এছাড়া নষ্ট হয়েছে বিভিন্ন ফসলের ক্ষেত। এতে দুর্ভোগের পাশাপাশি বড় ধরণের আর্থিক ক্ষতির মুখে পড়েছে ওই ৬ গ্রামের বাসিন্দারা।

প্রায় ২০ বছর আগে পানি উন্নয়ন বোর্ড বাগেরহাটে ভৈরব নদীর তীরে বেড়িবাঁধ নির্মাণ করে। তবে পরবর্তীতে বাঁধের বিভিন্ন অংশ ক্ষতিগ্রস্ত হলেও আর মেরামত করা হয়নি। ফলে জোয়ারের পানি ঢুকে প্রায়ই প্লাবিত হয় বিভিন্ন এলাকা।

গেল আগস্টের শুরুতে আবারো বাঁধ ভেঙে সদর উপজেলার মাঝিডাঙ্গা, রহিমাবাদ, কোড়ামারা, কুকোড়ামারা, ডিংশাইপাড়া এবং পোলঘাট এলাকায় ৬টি গ্রামে পানি ঢুকে পড়ে। এতে এসব গ্রামের ঘরবাড়ি, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও রাস্তাঘাটে হাঁটুপানি জমে আছে। পানিবন্দি হয়ে মানবেতর জীবনযাপন করছে সহস্রাধিক পরিবার।

এছাড়া ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে সবজি ক্ষেত, ভেসে গেছে দুই শতাধিক পুকুর ও মাছের ঘের। ফলে ক্ষতির মুখে পড়েছেন অনেকে। তবে দ্রুত বাঁধ মেরামতের আশ্বাস দিলেন স্থানীয় সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট মীর শওকত আলী বাদশা।

প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়ার কথা জানিয়েছে স্থানীয় পানি উন্নয়ন বোর্ডও।

বর্তমান ভোগান্তি লাঘবের পাশাপাশি ভবিষ্যত চিন্তা করে বাঁধের দীর্ঘস্থায়ী মেরামতের দাবি বাগেরহাটবাসীর।

 

এই বিভাগের আরো খবর

কাঁঠালবাড়ী-শিমুলিয়া রুটে চারঘণ্টা পর ফেরি চলাচল শুরু

মাদারীপুর প্রতিনিধি: ঘন কুয়াশার কারণে কাঁঠালবাড়ী-শিমুলিয়া রুটে চার ঘণ্টা বন্ধ থাকার পর ফেরি চলাচল শুরু হয়েছে। শনিবার- ৪ নভেম্বর দিবাগত রাত...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is