ঢাকা, রবিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৮ আশ্বিন ১৪২৫

2018-09-23

, ১২ মহাররম ১৪৪০

বস্তি পেরুবার সময় ট্রেন চালকরা থাকেন অতিরিক্ত সতর্ক

প্রকাশিত: ১০:৫২ , ০৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮ আপডেট: ০৫:৫৮ , ০৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮

নিজস্ব প্রতিবেদক: রেল লাইনের ধারে যুগের পর যুগ বস্তি থাকলেও বরাবরই তা বহুবিধ ঝুঁকিপূর্ণ বসবাস হিসেবে বিবেচিত। তাই ট্রেন বস্তি ঘেরা এলাকা পেরুবার সময় চালকরা থাকেন অতিরিক্ত সতর্ক। রেল লাইনের ধার ঘেঁষে বস্তি গড়ে ওঠায় এখানকার অনেক কর্মকান্ড ট্রেনের জন্য ঝুঁকি তৈরি করে।
এমন সব নিয়মিত দৃশ্য বলে দেয় এখানকার পরিবেশ কত অস্বাস্থ্যকর ও ঝুঁকিপূর্ণ।
দিন রাত ধরে খানিক বিরতি দিয়ে এসব বস্তিঘর প্রায় ঘেসে যাচ্ছে ট্রেন, আর ধুলো-ময়লা উড়ে পড়ছে খাবারে।
এছাড়াও আছে ট্রেনে কাটা পড়ার ভয়। এই আতংক শিশুদের নিয়ে বেশি, বড়রা বেশ সতর্ক থাকে। এই বস্তিবাসীরা ট্রেনে কাটা পড়তে পারে এমন আতংকে থাকে অন্যরা, অথচ এক্ষেত্রে ট্রেন চালকদের পর্যবেক্ষণ একদম উল্টো।
স্বাস্থ্য ঝুঁকি এখানে চরমে।  তা কমাতে কোথাও কোথাও বেসরকারি সংস্থার সহায়তায় তৈরী করেছে গণ  গোসলখানা ও শৌচাগার।
এই বস্তিবাসীদের নানা কর্মকান্ড রেল বিভাগ ও চলন্ত ট্রেনের যাত্রীদের জন্যও ঝুঁকি তৈরি করে। যা টের পান ট্রেনের চালকরা।
এসব এলাকায় অপরাধ প্রবনতা ক্রমেই বি¯তৃত হয়েছে। এর কারণে, বিশেষজ্ঞদের মতে, দিন দিন সামাজিক নিরাপত্তা বহুমূখী হুমকির মুখে পড়ছে।

এই বিভাগের আরো খবর

জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে সামাজিক ক্লাব প্রতিষ্ঠার চর্চা

নিজস্ব প্রতিবেদক: বিদেশি ভাষা হলেও ক্লাব বললেই সবাই এর অর্থ বোঝে। দেশে নানা ধরনের ক্লাব রয়েছে। যেমন- খেলার ক্লাব, সরকারি বেসরকারি বিভিন্ন...

চিংড়ি রপ্তানি মাত্র চারভাগের একভাগ, চাষে নেতিবাচক প্রভাব

নিজস্ব প্রতিবেদক: দেশে ৩৬ প্রজাতির চিংড়ি প্রকৃতিতে পাওয়া যায়। তার মধ্যে বাগদা ও গলদাসহ মাত্র পাঁচ প্রজাতির চিংড়ি চাষ করা সম্ভব হয়। চাষ থেকে...

দেশে পাঁচ প্রজাতির চিংড়ি চাষ, আধুনিকায়ন হলে বেশি উৎপাদন সম্ভব

নিজস্ব প্রতিবেদক: চিংড়ি চাষ খুব জটিল নয়, তবে নিরিড় পরিচর্যা দারুণ গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। এইখানটায় দুর্বলতা চাষের চার দশকেও দূর করা যায়নি। তবে...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is