ঢাকা, বুধবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১১ আশ্বিন ১৪২৫

2018-09-26

, ১৫ মহাররম ১৪৪০

উপকূলীয় অঞ্চলে স্বাস্থ্যসেবায় রংধনু হাসপাতালের নজির স্থাপন

প্রকাশিত: ০৯:৪৯ , ৩১ আগস্ট ২০১৮ আপডেট: ০৯:৪৯ , ৩১ আগস্ট ২০১৮

চট্টগ্রাম প্রতিনিধি: দেশের উপকূলীয় এলাকার প্রত্যন্ত অঞ্চলগুলোর সুবিধাবঞ্চিতদের স্বাস্থ্যসেবা দিয়ে অনন্য নজির স্থাপন করেছে ভ্রাম্যমাণ জাহাজ রংধনু ফ্রেন্ডশিপ হাসপাতাল। সাড়ে ৫ বছরের যাত্রায় ১ লাখ ৬৩ হাজারেরও বেশি মানুষকে বিনামূল্যে চিকিৎসাসেবা দিয়েছে ভ্রাম্যমাণ এ হাসপাতালটি। আনুষ্ঠানিকভাবে কার্যক্রম শেষ হলেও প্রত্যন্ত অঞ্চলে স্যাটেলাইট ক্লিনিক স্থাপনের মাধ্যমে চিকিৎসা সেবা অব্যাহত রাখার কথা জানিয়েছে রংধনু ফ্রেন্ডশিপ হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

রংধনু ফ্রেণ্ডশিপ হাসপাতাল, উপকূলীয় প্রত্যন্ত অঞ্চলের সুবিধাবঞ্চিতদের কাছে সেবা আর ভালোবাসার এক অগ্রদূত। ২০১৩ সালের জানুয়ারি থেকে বঙ্গপোসাগর তীরবর্তী মানুষদের চিকিৎসা সেবা দেয়া শুরু করে বিশেষায়িত এ হাসপাতালটি। এর মাধ্যমে দেশ-বিদেশের অভিজ্ঞ চিকিৎসকরা কক্সবাজারের কুতুবদিয়া ও বাগেরহাটের বিভিন্ন উপকূলীয় অঞ্চলের এক লাখ ৬৩ হাজারেরও বেশি রোগীকে চিকিৎসা সেবা দিয়েছেন। জরুরি অপারেশন করা হয়েছে সাড়ে পাঁচ হাজার।

বিনামূল্যে চিকিৎসার মাধ্যমে মানুষের হৃদয়ে জায়গা করে নেয় ভ্রাম্যমাণ হাসপাতালটি।

প্রায় সাড়ে পাঁচ বছরের যাত্রা শেষে হাসপাতালটির কার্যক্রম আনুষ্ঠানিকভাবে সমাপ্ত ঘোষণা করা হয়েছে। হাসপাতালটির মূল উদ্যোক্তা ও বেসরকারি সংস্থা ফ্রেন্ডশীপ এর নির্বাহী পরিচালক রুনা খান জানান, জাহাজটি পুরনো হয়ে যাওয়ায় বাধ্য হয়ে চিকিৎসাসেবা বন্ধ করে দিতে হয়েছে। তবে উপকূলীয় এলাকাগুলোতে স্থায়ী স্যাটেলাইট ক্লিনিক স্থাপন করা হবে বলে জানান তিনি।

ফ্রেন্ডশিপ হাসপাতাল হিসেবে কাজের আগে ২১ বছর ধরে গ্রিনপিসের সাথে বিশ্বব্যাপী পরিবেশ রক্ষায় কাজ করেছে ভ্রাম্যমাণ এ জাহাজটি।

 

এই বিভাগের আরো খবর

ঐক্য প্রক্রিয়ার পাঁচমিশালি নেতৃত্বে জনগণের আস্থা নেই: কাদের

নোয়াখালী প্রতিনিধি: জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়ার পাঁচমিশালি নেতৃত্বে জনগণের আস্থা নেই বলে মন্তব্য করেছেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক...

অর্থ আত্মসাতের মামলায় ব্যাংক কর্মকর্তা গ্রেপ্তার 

মেহেরপুর প্রতিনিধি: তিন কোটি ২৫ লাখ টাকা আত্মসাতের মামলায় মেহেরপুর অগ্রণী ব্যাংকের ক্যাশিয়ার মাহমুদুল করিমকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। আজ...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is