ঢাকা, শনিবার, ২০ এপ্রিল ২০১৯, ৭ বৈশাখ ১৪২৬

2019-04-19

, ১৩ শাবান ১৪৪০

শহিদুল আলমকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ

প্রকাশিত: ০৯:৩২ , ১৩ আগস্ট ২০১৮ আপডেট: ০৯:৩২ , ১৩ আগস্ট ২০১৮

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ তথ্যপ্রযুক্তি আইনে দায়ের করা মামলায় আলোকচিত্রী শহিদুল আলমকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দিয়েছে আদালত।

রবিবার রিমান্ড শেষে তাকে আদালতে হাজির করে পুলিশ। এ সময় মামলার তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত তাকে কারাগারে আটক রাখার আবেদন করেন মামলা তদন্তকারী কর্মকর্তা ডিবি পুলিশের পরিদর্শক (ওসি) আরমান আলী।

আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ঢাকা মহানগর হাকিম ফাহাদ বিন আমিন চৌধুরী তাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

রমনা থানার আদালত শাখার নিবন্ধন কর্মকর্তা পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) মাহমুদুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

এর আগে ৬ আগস্ট জামিন নামঞ্জুর করে শহিদুল আলমকে সাতদিনের রিমান্ড দেন আদালত।

৫ আগস্ট রাতে ধানমণ্ডির বাসা থেকে শহিদুলকে ধরে নিয়ে যায় ডিবি পরিচয়ে একদল লোক। এরপর তাকে রমনা থানার তথ্যপ্রযুক্তি আইনে দায়ের করা মামলায় গ্রেপ্তার দেখায় পুলিশ।

ডিবি (উত্তর) পরিদর্শক মেহেদী হাসান বাদী হয়ে রমনা থানায় মামলাটি দায়ের করেন।

মামলায় ‘কল্পনাপ্রসূত তথ্যের’ মাধ্যমে জনসাধারণের বিভিন্ন শ্রেণির মধ্যে ‘মিথ্যা প্রচার’ চালানো, উসকানিমূলক তথ্য উপস্থাপন, সরকারকে ‘প্রশ্নবিদ্ধ ও অকার্যকর’ হিসেবে আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলে উপস্থাপন, আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতির ‘অবনতি ঘটিয়ে’ জনমনে ‘ভীতি ও সন্ত্রাস ছড়িয়ে’ দেয়ার ষড়যন্ত্র এবং তা বাস্তবায়নে ইলেকট্রনিক বিন্যাসে ‘অপপ্রচারের’ অভিযোগ আনা হয় আলোকচিত্রী শহিদুলের বিরুদ্ধে।

এই বিভাগের আরো খবর

বৈশাখী টেলিভিশনের শেয়ার হস্তান্তর সংক্রান্ত মামলায় বুলু’র রিভিউ খারিজ

নিজস্ব প্রতিবেদক : বৈশাখী টেলিভিশনের মালিকানা দাবি করে এমএনএইচ বুলুর করা রিভিউ আবেদন খারিজ করে দিয়েছে আপিল বিভাগ। প্রধান বিচারপতি সৈয়দ...

কয়েকদফা সভা করে নুসরাত হত্যার পরিকল্পনা চূড়ান্ত হয়: আদালতে শরীফের জবানবন্দি

ফেনী প্রতিনিধি: ফেনীর সোনাগাজীতে আগুনে পুড়িয়ে মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফিকে হত্যার ঘটনায় সরাসরি জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে আদালতে...

নুসরাত হত্যা মামলায় জড়িত মনির পাঁচদিনের রিমাণ্ড

নিজস্ব প্রতিবেদক: ফেনীতে মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফিকে পুড়িয়ে হত্যার ঘটনায় সরাসরি জড়িত কামরুন নাহার মনিকে ৫দিনের রিমান্ডে পাঠিয়েছে...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is