ঢাকা, রবিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৮ আশ্বিন ১৪২৫

2018-09-23

, ১২ মহাররম ১৪৪০

ঐতিহাসিক নিদর্শন নোয়াখালীর ‘গান্ধী আশ্রম’

প্রকাশিত: ০৩:৪৮ , ০৯ আগস্ট ২০১৮ আপডেট: ০৩:৫০ , ০৯ আগস্ট ২০১৮

ডেস্ক প্রতিবেদন: নোয়াখালীর অন্যতম দর্শনীয় স্থান ঐতিহাসিক গান্ধী আশ্রম। জেলার সোনামুড়ী উপজেলার জয়াগ বাজার সংলগ্ন সড়কের পাশে এর আশ্রমের অবস্থান। ১৯৪৬ সালের ১০ অক্টোবর নোয়াখালী দাঙ্গার খবর শুনে একই বছরের ৭ নভেম্বর নোয়াখালী আসেন মহাত্মা গান্ধী। এরপর দত্তপাড়া এলাকায় সভার মধ্য দিয়ে শুরু হয় গান্ধীর গ্রাম পরিক্রমা। এর এক বছর পর ১৯৪৭ সালের ২৯ জানুয়ারি জয়াগ গ্রামে যান মহাত্মা গান্ধী। একদির পর অর্থ্যাৎ ৩০ জানুয়ারি তিনি সেখানে উদ্ধোধন করেন একটি বুনিয়াদী বিদ্যালয় যা বর্তমানে ‘গান্ধী মেমোরিয়াল টেকনিক্যাল ইনস্টিটিউট’ নামে পরিচিত।

ওইসময় নোয়াখালীর জমিদার ছিলেন ব্যারিস্টার হেমন্ত কুমার ঘোষ। তিনি গান্ধীর জয়াগ আগমন এবং তার বাড়িতে গান্ধীজির অবস্থানের স্মৃতিকে ধরে রাখতে নিজের স্থাবর-অস্থাবর সম্পত্তি দান করেন মহাত্মা গান্ধীকে। এবং তার পিতামাতার নামানুসারে ‘অম্বিকা কালীগঙ্গা চেরিটেবল ট্রাস্ট’ নামের একটি ট্রাস্ট গঠন করেন।

তবে ১৯৭৫ সালে এক সরকারি সিদ্ধান্তের মাধ্যমে ‘অম্বিকা কালীগঙ্গা চেরিটেবল ট্রাস্ট’ ভেঙে ‘গান্ধী আশ্রম ট্রাস্ট’ সৃষ্টি করা হয়। চারু চৌধুরী ছিলেন এই ট্রাস্টের প্রতিষ্ঠাতা সেক্রেটারি।

এর আগে, ১৯৪৭ সালের ২ মার্চ আরেকটি সা¤প্রদায়িক দাঙ্গার খবর পাওয়ায় গান্ধীজি বিহার ফিরে যাওয়ার আগে চারু চৌধুরীকে নোয়াখালীতে শান্তি মিশন ও ট্রাস্টের কাজ চালিয়ে যেতে বলেন এবং আবার নোয়াখালী আসার প্রতিশ্র“তি দেন। তবে পরের বছরই তিনি পরলোকগমন করায় আর জয়াগে আসতে পারেননি।

এদিকে গান্ধীজি না আসতে পারলেও চারু চৌধুরী গান্ধীজিকে দেওয়া কথা অনুযায়ী ট্রাস্ট আর শান্তি মিশনের কাজ এগিয়ে নিয়ে যান। বর্তমানে গান্ধী আশ্রমে গান্ধীজির নামে একটি জাদুঘরও আছে যাতে গান্ধীজির তখনকার নোয়াখালী সফরের শতাধিক ছবি ও ব্যবহৃত জিনিসপত্র ও প্রকাশিতলেখা সংরক্ষিত আছে।

কিভাবে যাবেন:
ঢাকা সায়েদাবাদ থেকে নোয়াখালীগামী চেয়ারকোচে জেলা সদর মাইজদী যাবেন। মাইজদী থেকে সোনাইমুড়ী গামী যেকোন লোকাল বাস সার্ভিস/ সিএনজি অটোরিক্সা যোগে জয়াগ বাজার নেমে রিক্সা বা পায়ে হেঁটে আধা কিলোমিটার পুর্বে গেলে গান্ধী আশ্রমে পৌঁছানো যাবে।

এই বিভাগের আরো খবর

চাঁদপুর জেলা আঞ্চলিক পাসপোর্ট কার্যালয়ে অতিরিক্ত অর্থ আদায়ের অভিযোগ

চাঁদপুর প্রতিনিধি: চাঁদপুর জেলা আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিসে নিয়মবহির্ভূতভাবে অতিরিক্ত অর্থ আদায় আর নানা অনিয়মে ভোগান্তিতে পড়তে হচ্ছে...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is