ঢাকা, বুধবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৪ আশ্বিন ১৪২৫

2018-09-19

, ৮ মহাররম ১৪৪০

আইপিইউ সম্মেলন: নিরাপত্তা সঙ্কট উত্তরণের পথ খুঁজছেন আইন প্রণেতারা

প্রকাশিত: ০৯:৫১ , ০৩ এপ্রিল ২০১৭ আপডেট: ০৯:৫১ , ০৩ এপ্রিল ২০১৭

নিজস্ব প্রতিবেদক:
ইন্টার পার্লামেন্টারি ইউনিয়ন-আইপিইউ’এর ঢাকা সম্মেলনে বৈশ্বিক নিরাপত্তা সঙ্কট ও চলমান অস্থিরতা থেকে উত্তরণের পথ খুঁজছেন আইনসভার প্রধানরা। তারা জানালেন, সঙ্কট মোকাবেলায় এদেশের মানুষের প্রাণশক্তি ও সামর্থ্য অবাক করছে তাদের।
জাতীয় সংসদের স্পিকার ও এ্যাসেম্বলি প্রেসিডেন্ট ডক্টর শিরীন শারমিন চৌধুরী জানান, নারীর ক্ষমতায়ন ও সামাজিক অগ্রগতিসহ বাংলাদেশের বিভিন্ন সাফল্যের মডেল তুলে ধরা হচ্ছে সম্মেলনে। তিনি আরো জানান, আন্তর্জাতিক এই সম্মেলনে অংশগ্রহণকারীদের মধ্যে বিনিময় হওয়া পারস্পারিক অভিজ্ঞতা নিজ নিজ দেশে কাজে লাগানোর কথা জানিয়েছেন বিভিন্ন দেশের আইন প্রণেতারা।
১৩৬তম আইপিইউ ঢাকা সম্মেলনে বিশ্বনেতাদের এমন অনেকেই অংশ নিয়েছেন, যারা এদেশে পা রাখার আগে খুব একটা চিনতেন না বাংলাদেশকে। বিশ্বমানচিত্রের এই ছোট্ট ব-দ্বীপে গণতান্ত্রিক দুনিয়ার এতো বড় আন্তর্জাতিক জমায়েতে হতে পারে তা’ তাদের ভাবনায়ই ছিলো না। লাতিন আমেরিকার সিনেটর আলাবার্তো হেবের তেমনই একজন। যিনি গণতন্ত্র সুসংহতকরণ, মানুষের জীবনমানের উন্নয়ন আর সামাজিক অগ্রগতির ক্ষেত্রে এদেশের সাফল্যের মডেলে শুধু বিস্মিতই নন, এই অভিজ্ঞতা কাজে লাগাতে চান নিজ দেশে।
বেলারুশিয়ান সাংসদ সের্গে রাখমানোভ বললেন, দেশে ইতিবাচক পরিবর্তন আনতে প্রয়োজন রাজনৈতিক বুদ্ধিমত্তা। গণতান্ত্রিক কাঠামোতে বাংলাদেশের নারীরা সেই বুদ্ধিমত্তার প্রমাণ রেখেছেন।
জাতীয় সংসদের স্পিকার ও এসেম্বলি প্রেসিডেন্ট ডক্টর শিরীন শারমিন চৌধুরী জানান, বিশ্বের শান্তি ও স্থিতিশীলতা বিরোধী সন্ত্রাস-জঙ্গিবাদ মোকাবেলায় করণীয় নির্ধারণ করা হবে আইপিইউ এর ঢাকা সম্মেলনে।
পাশাপাশি দারিদ্র্য বিমোচন ও সামাজিক উন্নয়নে বাংলাদেশের সাফল্যের অভিজ্ঞতা জেনে নিচ্ছেন বিশ্ব নেতারা।
এদিকে, আইপিইউ মুখপাত্র জানালেন, সম্মেলনে এসে নতুন নতুন অভিজ্ঞতায় ঋদ্ধ হচ্ছেন অংশগ্রহণকারীরা। সবচেয়ে বেশি বিস্মিত হচ্ছেন এদেশের মানুষের প্রাণশক্তি আর দারিদ্র্য জয়ের কৌশল দেখে।
১৩৬তম ঢাকা আইপিইউ সম্মেলন বিশ্ব গণতান্ত্রিক মোর্চায় সঙ্কট মোকাবেলার রূপরেখা প্রণয়ণে শক্তি যোগাবে- এমনটাই আশা করে আয়োজক প্রতিষ্ঠান- বাংলাদেশে জাতীয় সংসদ।

এই বিভাগের আরো খবর

গ্যাস বেলুনে হিলিয়ামের পরিবর্তে ব্যবহার হচ্ছে হাইড্রোজেন গ্যাস

নিজস্ব প্রতিবেদক: বিপজ্জনক ও বিস্ফোরক হাইড্রোজেন গ্যাস দিয়ে বেলুন ফুলিয়ে উড়ানো হচ্ছে বিভিন্ন অনুষ্ঠানে। নানা উৎসবে শিশুদের হাতে হাতে...

তিনমাসের মধ্যেই কাজ শুরু

ঢাকার নদী-খাল দূষণমুক্ত ও নাব্যতা বৃদ্ধির উদ্যোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক: এবার ঢাকার আশপাশের নদী ও খাল দূষণমুক্ত ও নাব্যতা বৃদ্ধির উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। এজন্য প্রায় ২৫ হাজার কোটি টাকার একটি...

পরিবেশ বান্ধব করার তাগিদ

কাগজ শিল্পে আসছে নতুন নতুন প্রকল্প 

নিজস্ব প্রতিবেদক: বিক্রির পরিমাণ হিসেবে দেশে প্রতিদিনের কাগজের বাজার প্রায় চার হাজার মেট্রিক টনের। টাকার অংকে যার পরিমাণ প্রায় আটাশ কোটি...

0 মন্তব্য

আপনার মতামত প্রকাশ করুন

Message is required.
Name is required.
Email is